<
JOB

প্রাথমিকের দ্বিতীয় ধাপের নিয়োগ পরীক্ষা এসএসসির আগে না পরে

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম ধাপে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা শেষে এখন দ্বিতীয় ধাপের নিয়োগ পরীক্ষার প্রস্তুতি নিচ্ছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। দ্বিতীয় ধাপে ময়মনসিংহ, খুলনা ও রাজশাহী বিভাগে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা আগামী বছরের জানুয়ারির শেষ সপ্তাহে বা ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে হতে পারে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের একজন কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে প্রথম আলোকে বলেন, ‘সহকারী শিক্ষক নিয়োগে প্রথম ধাপের চেয়ে দ্বিতীয় ধাপে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ও কেন্দ্রের সংখ্যা বেশি। প্রথম ধাপের তুলনায় দ্বিতীয় ১০০টি কেন্দ্র বেশি। এ পরীক্ষার জন্য প্রায় ৬১৩টি কেন্দ্র আমরা ঠিক করতেছি। এগুলো ঠিক করতে সময় লাগছে।’

কবে দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা নেওয়া হতে পারে এমন প্রশ্নের জবাবে ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘যত আগে পরীক্ষা নেওয়া যায়, ততই আমাদের জন্য ভালো। এ লক্ষ্যে আমরা প্রস্তুতি নিচ্ছে। কারণ, এসএসসি পরীক্ষা ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝিতে শুরু হবে। তাই এসএসসি পরীক্ষার আগেই আমাদের দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা নিতে হবে। এসএসসি পরীক্ষা শুরু হলে আমরা কেন্দ্র পাব না। জানুয়ারির শেষ সপ্তাহে বা ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে দ্বিতীয় ধাপের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা হতে পারে। আমরা শিগগিরই আনুষ্ঠানিকভাবে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ প্রকাশ করব।’

প্রাথমিকের দ্বিতীয় ধাপে ময়মনসিংহ, খুলনা ও রাজশাহী বিভাগে আবেদন করেছেন ৪ লাখ ৩৯ হাজার ৪৩৮ জন। এবারই প্রথম আবেদন ও নিয়োগ পরীক্ষা বিভাগ ধরে ধরে দেওয়া হচ্ছে। গুচ্ছভিত্তিক এ নিয়োগে তিন ধাপে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। পরীক্ষাও আলাদাভাবে নেওয়া হচ্ছে।

৮ ডিসেম্বর রংপুর, বরিশাল ও সিলেট বিভাগের আওতাধীন জেলাগুলোয় লিখিত পরীক্ষা সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত জেলা পর্যায়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। তিন বিভাগে এবার মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ৩ লাখ ৬০ হাজার ৬৯৭ এবং কেন্দ্রের সংখ্যা ছিল ৫৩৫।

রংপুর, বরিশাল ও সিলেট বিভাগের যেসব জেলায় পরীক্ষা হয়, সেগুলো হলো রংপুর, গাইবান্ধা, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড়, কুড়িগ্রাম, নীলফামারী, লালমনিরহাট, বরিশাল, পটুয়াখালী, ভোলা, বরগুনা, ঝালকাঠি, পিরোজপুর, সিলেট, হবিগঞ্জ, সুনামগঞ্জ ও মৌলভীবাজার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *